বর্ষা

ওয়াহিদার হোসেন
কবিতা
Bengali
বর্ষা

ভোর

ভোর

অথবা হবে হবে ভাব।ভাতাজীবি এই যুবক প্রহরে কিছু আলো কিছু অন্ধকার নিয়ে হাঁটা প্র‍্যাক্টিস হচ্ছে।

 

বর্ষা

হে প্রিয় বর্ষার প্রতিশ্রুতি দাও

যেভাবে নি:স্ব হয়েছি বারবার
পাতাঝরা ঋতুতে জলে ঝড়ে

মিথ্যে হোক তবু বলো ভালোবাসি

 

নদী

বর্ষায় বর্ণনায় আসে প্রশস্ত এক নদী

শীতে শুকিয়ে যাওয়া তন্বীর মতো সে হারিয়ে যায় কোনো এক কুম্ভ মেলায়

তাঁকে খুঁজে পেতেই এই
বর্ষার আবাহন

 

মল্লিকার্জুন মনসুর

মল্লিকার্জুন মনসুর একদিন আমার কানে বিষ ঢেলে দিয়েছেন

আমি ভালোবাসার উচ্চারণ গুলো ভুল করে শিখে নিয়েছিলাম।

 

অপেক্ষা

আমার পাগলীর অপেক্ষাগুলো বরফ হয়।

আমি ফিরতে ফিরতে তার চোখ শুকিয়ে যায়।সে অন্তহীন প্রহরে ঘুমিয়ে পড়ে

ওয়াহিদার হোসেন। কবি। জন্ম ১৯৮৬, ভারতের পশ্চিমবঙ্গরাজ্যের আলিপুরদুয়ার জেলার দক্ষিণ খয়েরবাড়ি রাঙ্গালিবাজনায়। লেখাপড়া করেছেন ইংরেজি সাহিত্যে। পেশাগত জীবনে তিনি একজন শিক্ষক। চাকরি করছেন ডুয়ার্সের এক প্রত্যন্ত চা বাগানের প্রাথমিক স্কুলে। প্রকাশিত বই: 'মধ্যরাতের দোজখ যাপন' (কাব্যগ্রন্থ, ২০১৩) এবং 'পরিন্দা' (কাব্যগ্রন্থ,...

এই বিভাগের অন্যান্য লেখাসমূহ

অহমিকা

অহমিকা

অহমিকা আত্মগরিমায় আজ অন্ধ হয়ে আছো, বিবেকের দংশনে মননে নেই বিশ্বাস। কর্মে ব্যস্ততা সময়ের আবর্তে…..