বেঁচে আছি

রোমান জাহান
কবিতা
Bengali
বেঁচে আছি

খেলাপি জীবন

সবই স্মৃতির মত
অনবরত
সময়ের সাথে সাথে
রুপান্তরের বিবশ পথে
ক্রমাগত পিছু হটে
কালদীর্ণ দৃশ্যপটে

সেদিন নম্র স্রোতে থাকি
মনস্তাপের ক্রুটি-বিচ্যুতি
ভগ্নস্তূপে সোজাসুজি
দস্তাবেজে ছড়িয়ে দেয়
বর্ণময় যৌথ পুঁজি,
স্মৃতিভ্রংশ অবচেতনে
ভেসে চলে
খেলাপি জীবনের গহীনে

পিতৃ-প্রেম

একটা জীবন খুজি
পিতার মত সহজ-সরল,
স্বতোজ্জ্বল জীবনের সিঁড়ি
তুলে নেয় আনন্দে অবিরল
সময়ের দৃষ্টিজাল
অমৃত পুত্রের মত বিশাল
মৃত্যুর স্মৃতি ভুলে
ভালোবাসার আঙুলে
সরলরেখার ছুড়ে মারে
স্বপ্নমুখী প্রান্তরে

একটা জীবন
জলের মত সরল ;
প্রভুর সান্নিধ্যে অবিরল
কেবল পিতার লক্ষ্যে ছুটে
ভালোবাসার সুনীল করপুটে

বেঁচে আছি

বেঁচে আছি–
মাঝে মাঝে দারুণ লাগে,

সংশয়ের সাথে হেঁটে–
জ্বলন্ত সিগারেট ঠোঁটে
নিশ্চিত দৌড়াই
ইচ্ছের মাঠে–
ইচ্ছেমাফিক, অবিরত,

হারানোর ক্ষতি
না পাওয়ার ক্ষত
সব কিছু ফেলে–
বয়সের গন্ধ, আত্মার স্পন্দন
সোডিয়াম আলোতে
হেঁটে যাওয়া জীবন
অপেক্ষার বৃষ্টিতে ভেজে
ইচ্ছের ছায়া ছুঁয়ে
অবাক ঠিকানায়
দিয়ে যায়
স্মৃতির প্রাচীন কম্পন–
হারিয়ে যাওয়া
বিশ্বাসী কথোপকথন

মৌলিক ভুল

মনে পড়ে যায়,
বদলে যাবার চমৎকার
ইচ্ছেরা হারায়–
অনিচ্ছার ভেতর;

হারানো সব দীর্ঘশ্বাস
আর মানবিক প্রকাশ
হুলুস্থূল আটকায়
বিশুদ্ধ বসবাস

চাওয়ার দেয়ালে ফাটল
চকচকে উজ্জ্বল
বদলে যাওয়া দেখে
অপেক্ষারা শেখে—
আলোকবর্তিতার জীবন
যেন আমবস্যার ভেতর চন্দ্রগ্রহন—

তারপরও ইচ্ছেরা ঘুরে
ঐন্দ্রজালিক দৈবের চরাচরে
একটিবার ভুল করে
শুদ্ধতা যদি আসে
মৌলিক ভুলের ভেতরে

রোমান জাহান। কবি। জন্ম বাংলাদেশে গারোপাহাড়ের পাদদেশে জেলা শেরপুর। পড়াশুনো করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। পেশা হিসেবে নিয়েছেন আইনকে। প্রকাশিত বই: ‘কেবল ক্ষয়ে যাওয়ার কাহিনি’ (কাব্যগ্রন্থ), ‘কষ্ট আছে ক্যাকটাস নেই’ (কাব্যগ্রন্থ, প্রকাশের অপেক্ষায়)

এই বিভাগের অন্যান্য লেখাসমূহ

ডাক

ডাক

ডাক তোমাকে গেঁথে ফেলি বড়শির নামে নাকি গেঁথেছে হারপুন কোনো; প্রতিদিন সমুদ্র সে ডাকে তুমি…..