রাত্রিসংবাদ

রোমান জাহান
কবিতা
Bengali
রাত্রিসংবাদ

সে ছাড়া

নিজেকে চূর্ণ করে দেখি
চিরদিনই আমি,
তার মুখাপেক্ষী-
অস্হির পোকার মত
মাছরাঙা স্মৃতিতে জেগে থাকি
সময়ের তীব্র তীরে দেখি-
সে ছাড়া আমি,
বয়সী বট-
ক্রুশকাঠের মত একাকী

ফানুস জীবন

জানাতে পারিনি নিজেকে
তোমার কুশল
সময়ের স্রোতে অবিরল
কেবলই ভেসে রয়
না বলা কাহিনি
ইচ্ছের অনার্য হরিনী
ভয়ার্ত দৌড়ায়
কবেকার জোছনায়
সময়ের হারানো অনুরন
স্মৃতি হাওয়ায় উড়ায়
অনিশ্চিত ফানুস জীবন।।

অভিমান, ব্যবধান

সময় তেমন নয়,
তবু দূরত্বের বিভ্রাট
মায়ার মৃত্তিকায়
গেথে দেয়
অনুপস্থিতির অভিমান,

ভালোলাগার পক্ষপাত
ভাঙন-প্রবণ অকস্মাৎ
কিংকর্তব্যবিমুঢ় বাড়ায়
দিন যাপনের ব্যবধান

অভিমান আর
ব্যবধান মিলে
ইচ্ছেকে ভাসিয়ে দেয়
স্মৃতির জলে

রাত্রিসংবাদ

যতই রাত্রির দিকে যাই
বেমালুম ভুলে যাই
যাবতীয় নিজস্ব সংবাদ,
অভিমানী স্বভাব-
ফুল-চন্দনের নিকটে,
স্মৃতিতে ডেকে ওঠে
তুমি আর তোমার শহর,
কবিতার ভেতর
আমার ভালোলাগা পোড়ায়
সময়ের বিচ্ছিন্নতা ছড়ায়
উদাসীন নীলিমায়

ভুলে গেছি
কোন কোন গন্তব্যগুলি রেখেছি
অপেক্ষাঘেরা পাটাতনে,
কেন বসে থাকে
শ্বাপদঘেরা জীবন
তাসের মায়াময় আকর্ষণে!!

রোমান জাহান। কবি। জন্ম বাংলাদেশে গারোপাহাড়ের পাদদেশে জেলা শেরপুর। পড়াশুনো করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। পেশা হিসেবে নিয়েছেন আইনকে। প্রকাশিত বই: ‘কেবল ক্ষয়ে যাওয়ার কাহিনি’ (কাব্যগ্রন্থ), ‘কষ্ট আছে ক্যাকটাস নেই’ (কাব্যগ্রন্থ, প্রকাশের অপেক্ষায়)

এই বিভাগের অন্যান্য লেখাসমূহ

কবুতর

কবুতর

অগ্নিকাণ্ড আমার চৌহদ্দিতে ধ্বংসস্তুপের ভীড় পুনর্বার নুয়ে পড়া অতীতের তীর জীবনের মাঝপথে রেখে যায় সম্পর্কের…..